Take a fresh look at your lifestyle.

মির্জাগঞ্জে ছাত্রদল নেতার ডান্ডাবেড়ি পায়ে বাবার জানাযায়

৪৪

পটুয়াখালীর মির্জাগঞ্জে মোঃ নাজমুল মৃধা নামে এক ছাত্রদল নেতা পায়ে ডান্ডাবেড়ি পড়া অবস্থায় বাবার জানাজার নামাজে অংশ নিয়েছেন। এসময় তার হাতকড়া খোলা হলেও পায়ে ডান্ডাবেড়ি পড়ানো ছিল। সে মির্জাগঞ্জ উপজেলা শাখা ছাত্রদলের যুগ্ম-আহ্বায়ক।

শনিবার (১৩ জানুয়ারি) বিকেল ৩টার দিকে উপজেলার পশ্চিম সুবিদখালী গ্রামে নিজ বাড়িতে তার বাবার জানাজার নামাজে অংশগ্রহণ করেন তিনি।

পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ছাত্রদল নেতা নাজমুলের বাবা দেউলী সুবিদখালী ইউনিয়ন বিএনপির সাবেক সভাপতি ও সাবেক ইউপি সদস্য মো. মোতালেব হোসেন মৃধা শুক্রবার (১২ জানুয়ারি) রাত ৯টার দিকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। এরপর বাবার জানাজায় অংশগ্রহণের জন্য শনিবার দুপুর ১টা থেকে ৫টা পর্যন্ত ৫ ঘন্টার জন্য তাকে প্যারোলে মুক্তি দেয় আদালত। এদিকে বিকাল পাঁচটায় সুবিদখালী হাইস্কুল মাঠে তার বাবার জানাজার নামাজের পূর্বনির্ধারিত সময় ছিল। কিন্তু দুপুর দুইটার দিকে কড়া নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে বাবাকে শেষ দেখার জন্য ওই ছাত্রদল নেতাকে বাড়িতে নিয়ে আসলে সে বাবার জানাজায় অংশগ্রহণের আবদার করে সে। পরে তার অংশগ্রহণ নিশ্চিত করতে নির্ধারিত সময়ের আগেই ছোট্ট পরিসরে নিজ বাড়িতে একটি জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় তার হাতকড়া খুলে দিলেও পায়ের ডান্ডাবেড়ি খোলা হয়নি। জানাজা শেষে তাকে পুনরায় পটুয়াখালী জেল হাজতে নিয়ে যাওয়া হয়। অপরদিকে পূর্ব নির্ধারিত সময় অনুযায়ী বিকেল পাঁচটায় জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে তাকে (মোতালেব মৃধা) দাফন করা হয়।

উল্লেখ্য, গত ২০ ডিসেম্বর মির্জাগঞ্জ থানা পুলিশ ছাত্রদল নেতা নাজমুলকে নিজ বাড়ির সামনে থেকে আটক করে একটি বিস্ফোরক মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে জেল হাজতে প্রেরণ করে।

এ ব্যাপারে মির্জাগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. হাফিজুর রহমান বলেন, ‘পাঁচ ঘণ্টার জন্য শর্তসাপেক্ষে ছাত্রদল নেতাকে জামিন দিয়েছেন আদালত। নিরাপত্তার স্বার্থে তার পায়ের ডান্ডাবেড়ি খুলে দেওয়া হয়নি।’

Leave A Reply

Your email address will not be published.