Take a fresh look at your lifestyle.

বরিশালে টিঅ্যান্ডটি অবসরপ্রাপ্ত উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলীর ১২ বছর কারাদণ্ড

১০৩

বরিশাল টিঅ্যান্ডটির অবসরপ্রাপ্ত উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলীকে দুর্নীতির মামলার দুই ধারায় ১২ বছর কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এছাড়াও ৬০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ৯ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

দণ্ডিত উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী (অবসরপ্রাপ্ত) মুনসুর আলী জোয়ার্দ্দার কুষ্টিয়া সদর উপজেলার বড় আটলাচাড়া এলাকার মৃত ইমান আলী জোয়ার্দ্দারের ছেলে। রায় ঘোষণার সময় তিনি পলাতক ছিলেন।

বুধবার বরিশাল বিভাগীয় বিশেষ জজ আদালতের বিচারক মেহেদী আল মাসুদ এই রায় দেন বলে জানিয়েছেন দুদকের পিপি একে নুর উদ্দীন আহম্মেদ।

ঘোষিত রায়ে উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী (অবসরপ্রাপ্ত) মুনসুর আলী জোয়ার্দ্দার প্রতারণা ও জালিয়াতির ধারায় ৭ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড, ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ৬ মাসের বিনাশ্রম এবং দুর্নীতির দায়ে ৫ বছরের কারাদণ্ড ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও তিন মাসের বিনাশ্রম দণ্ড দেওয়া হয়েছে।

পিপি একে নুর উদ্দীন আহম্মেদ বলেন, মামলার তিন আসামি ছিল। এর মধ্যে বরিশাল ফোন্স এর উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী (অবসরপ্রাপ্ত) মুনসুর আলী জোয়ার্দ্দারকে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। অভিযোগ প্রমাণ না হওয়ায় লাইন ম্যান এমদাদ হোসেনকে খালাস দেওয়া হয়েছে। এছাড়া অপর মামলার আসামি আগৈলঝাড়া উপজেলার ডিজিটাল টেলিফোন এক্সচেঞ্জের বরখাস্ত হওয়া উপ-সহকারী প্রকৌশলী ইব্রাহিম খান মারা যাওয়ায় তাকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।

বেঞ্চ সহকারী আবুল বাশার মামলার বরাত দিয়ে জানান, আগৈলঝাড়া উপজেলার কবির তালুকদার সুপার মার্কেটে দোকান নেয় উপ-সহকারী প্রকৌশলী ইব্রাহিম খান। তার ছেলে প্রিন্স খানের মাধ্যমে ওই দোকান পরিচালনা করতো। ২০০৩ সালের ৮ জুন থেকে ২৮ জুন পর্যন্ত ১২ নম্বরের মাধ্যমে ২৪টি সংযোগ নিয়ে ব্যবসা করে ১৭ লাখ ৯২ হাজার ৮২৩ টাকার আর্থিক ক্ষতিসাধন করে। নিজেরা অবৈধভাবে লাভবান হয়।

এ ঘটনায় ২০০৪ সালের ১৬ অক্টোবর বরিশাল জেলা দুর্নীতি দমন ব্যুরোর সহকারী পরিদর্শক হুমায়ন কবির বাদী হয়ে তিনজনের বিরুদ্ধে মামলা করে।

দুদকের বরিশাল জেলার সমন্বিত কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক নাজমুল হাসান ২০১৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর তিনজনকে অভিযুক্ত করে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেয়। বিচারক ১২ জনের সাক্ষ্য নিয়ে রায় দিয়েছেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.