Take a fresh look at your lifestyle.

অনির্দিষ্টকালের জন্য পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করল ভারত

৩৬

অনির্দিষ্টকালের জন্য পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে ভারত। দেশটির বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, সরকার পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত পেঁয়াজ রপ্তানি করা যাবে না। খবর দ্য হিন্দু ও দ্য ইকনোমিক টাইমসের।

গত বছরের ডিসেম্বরে পিঁয়াজ রপ্তারি ওপর নিষেধাজ্ঞা দেয় বিশ্বের সবচেয়ে বড় পিঁয়াজ রপ্তানিকারক দেশ ভারত। যা বাড়িয়ে চলতি বছরের ৩১ মার্চ করা হয়। কিন্তু এ সময় শেষ হওয়ার আগেই পিঁয়াজ রপ্তানি নিয়ে নতুন করে নিষেধাজ্ঞার কথা জানাল দেশটি।

গতকাল শুক্রবার বিকেলে জারি করা একটি আদেশে বলা হয়েছে, পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত পিঁয়াজের ওপর নিষেধাজ্ঞা বহাল থাকবে।

 

যদিও ভারতের এই নিষেধাজ্ঞা শিগগিরই তুলে নেওয়া হবে বলে আশা করেছিলেন ব্যবসায়ীরা। কেন না, এই নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হওয়ার পর থেকেই ভারতের স্থানীয় বাজারে পিঁয়াজের দাম অর্ধেকেরও বেশি কমে গেছে। এছাড়া, চলতি মৌসুমের ফসলের নতুন সরবরাহও শুরু হয়েছে।

তবে এর মধ্যেই বাংলাদেশে ৫০ হাজার টন পিঁয়াজ রপ্তানির অনুমতি রয়েছে দেশটির কর্তৃপক্ষের। চলমান নিষেধাজ্ঞার মধ্যেই গত ৪ মার্চ বাংলাদেশে ৫০ হাজার টন পিঁয়াজ রপ্তানির অনুমতি দেয় ভারত। দেশটির রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা ন্যাশনাল কো-অপারেটিভ এক্সপোর্ট লিমিটেডের (এনসিইএল) মাধ্যমে এই পিঁয়াজ বাংলাদেশে রপ্তানির অনুমতি দেওয়া হয়।

ভারতের বৈদেশিক বাণিজ্যবিষয়ক মহাপরিচালকের দপ্তরের (ডিজিএফটি) (ডিজিএফটি) এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করে। এতে বলা হয়, নিষেধাজ্ঞার মধ্যেই বাংলাদেশের পাশাপাশি মধ্যপ্রাচ্যের দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাতেও ১৪ হাজার ৪০০ টন পিঁয়াজ রপ্তানি করবে নয়াদিল্লি।

বাংলাদেশে ৫০ হাজার টন পিঁয়াজ রপ্তানির বিষয়ে ভারতের ভোক্তা বিষয়ক দপ্তরের সচিব রোহিত কুমার সিং নয়াদিল্লিতে সাংবাদিকদের জানিয়েছিলেন, ভারতের রপ্তানিকারকরা আগামী ৩১ মার্চ পর্যন্ত এই পিঁয়াজ বাংলাদেশে পাঠাতে পারবে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.